সোমবার, ২৯ নভেম্বর ২০২১, ০১:৪৯ পূর্বাহ্ন

দুই দশকে আমেরিকায় দ্বিগুণ হয়েছে মুসলিম জনসংখ্যা

আজকাল ডেস্ক:
  • আপডেট : শনিবার, ২ অক্টোবর ২০২১, ১১:৩৬ am

যুক্তরাষ্ট্রে টুইন টাওয়ারে বিমান হামলার পুরোদস্তুর দায় চাপানো হয় মুসলিমদের ওপর। ফলশ্রুতিতে শান্তির ধর্ম ইসলামের প্রতি কিছুটা তিক্ততা তৈরি হয় অমুসলিমদের মনে। কিন্তু সে তিক্ততা মধুময় ভালোবাসায় পরিণত হতে সময় নেয়নি খুব বেশি। আর তার প্রমাণ মিলছে দিন দিন আমেরিকানদের মধ্যে ইসলাম প্রীতি বৃদ্ধির মাধ্যমে।

যুক্তরাষ্ট্রে টুইন টাওয়ারে বিমান হামলার পুরোদস্তুর দায় চাপানো হয় মুসলিমদের ওপর। ফলশ্রুতিতে শান্তির ধর্ম ইসলামের প্রতি কিছুটা তিক্ততা তৈরি হয় অমুসলিমদের মনে। কিন্তু সে তিক্ততা মধুময় ভালোবাসায় পরিণত হতে সময় নেয়নি খুব বেশি। আর তার প্রমাণ মিলছে দিন দিন আমেরিকানদের মধ্যে ইসলাম প্রীতি বৃদ্ধির মাধ্যমে।

২০০১ সালে সেই হামলার পর প্রায় ২০ বছরে আমেরিকায় মুসলিম জনসংখ্যা বেড়ে দ্বিগুণ হয়েছে। সম্প্রতি প্রকাশিত বেশ কিছু রিপোর্টে এমনই দাবি করা হয়েছে বলে এক প্রতিবেদনে জানিয়েছে আন্তর্জাতিক সাপ্তাহিক পত্রিকা দ্য ইকোনোমিস্ট।

‘বিং ডেমোনাইজড হ্যাজ নট স্টপড আমেরিকান মুসলিমস ইমপ্রেসিভ রাইজ’ শিরোনামের ওই প্রতিবেদনে দিনকে দিন যুক্তরাষ্ট্রে কিভাবে মুসলিমদের সংখ্যা বাড়ছে তা উল্লেখ করা হয়েছে।

ইকোনোমিস্ট বিভিন্ন রিপোর্টের বরাতে জানিয়েছে, মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে ২০০০ সালে মুসলিমদের সংখ্যা ছিল প্রায় ২০ লাখ, যা ২০২০ সালে বেড়ে দাঁড়ায় ৪০ লাখে।

প্রতিবেদনটিতে আরও বলা হয়, ২০৫০ সালের মধ্যে আমেরিকায় মুসলিমরা হিন্দুদের দ্বিগুণ এবং ইহুদিদের চেয়ে দেড়গুণ বেশি হবে। ২০৩০ সালের মধ্যে সংখ্যার বিচারে ইহুদিদের ছাপিয়ে যাবে মুসলিমরা।

এ ছাড়া বিভিন্ন রাজ্যে মুসলিমদের আধিক্য দেখা দেবে। যেমন- টেক্সাস অঙ্গরাজ্য। রক্ষণশীল ও রিপাবলিকান টেক্সাসে এখনই দেশটির মধ্যে সবচেয়ে বেশি সংখ্যক মুসলিমের বাস। অঙ্গরাজ্যটিতে রয়েছে বড় বড় মসজিদ ও ইসলামি প্রতিষ্ঠান।

সিএনএন-এর এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, ২০০০ সালে আমেরিকায় মসজিদ ছিল প্রায় ১,৩০০টি। ২০ বছর পর ২০২০ সালে মসজিদের সংখ্যা ২,৮০০-এর কাছাকাছি। অর্থাৎ বৃদ্ধির হার ১৩০ শতাংশ।

অন্যদিকে সামাজিক দিক থেকে মুসলিমদের অগ্রগতির পর রাজনীতিতেও এখন মুসলিমদের অংশগ্রহণ লক্ষণীয়। ২০০০ সালে আমেরিকায় কোনো মুসলিম কংগ্রেসম্যান বা কংগ্রেসওম্যান ছিলেন না। কিন্তু এখন ২ জন সক্রিয় কংগ্রেসওম্যান রয়েছেন। চিকিৎসক, বিজ্ঞানী, শিল্পী থেকে শুরু করে বিভিন্ন পেশায় মুসলিমরা জায়গা করে নিতে শুরু করেছেন।

এ ছাড়া ২০২০ সালে মুসলিমদের প্রতি ঘৃণা থেকে সৃষ্ট অপরাধ কমেছে ৪০ শতাংশ। অর্থাৎ বলাই যায়– মার্কিনীদের মধ্যে গ্রহণযোগ্যতা বাড়ছে মুসলিমদের। অনেক মার্কিনী ইসলাম ধর্ম গ্রহণও করছেন। আমেরিকায় হালাল খাদ্য শিল্প এখন দ্রুত হারে বেড়ে উঠছে। ২০১৬ সালে এর ব্যবসা ছিল ২ হাজার কোটি ডলারেরও বেশি। বর্তমানে তা আরো বেশি।

এর আগে পিউ রিসার্চ সেন্টারের পর্যবেক্ষণে বলা হয়, প্রতিবছর ১ লাখ মুসলিম যোগ হচ্ছে যুক্তরাষ্ট্রে। মুসলমান অভিবাসী এবং একইসঙ্গে আমেরিকান মুসলমানদের মধ্যে জনসংখ্যা বৃদ্ধির হার বেশি থাকার কারণেই এমনটা হচ্ছে।

Print Friendly, PDF & Email

নিউজটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই ক্যাটাগরীর আরো খবর

Add

© All rights reserved © 2017 AjKaal24.Com
Theme Dwonload From ThemesBazar.Com