বৃহস্পতিবার, ১৮ জুলাই ২০১৯, ১১:৩৭ পূর্বাহ্ন

স্ত্রী সৌদি গিয়ে যোগাযোগ বন্ধ করায়…

স্ত্রী সৌদি গিয়ে যোগাযোগ বন্ধ করায়…

আজকাল প্রতিবেদক:
সৌদি আরব গিয়ে স্ত্রী যোগাযোগ বন্ধ করে দিয়েছে, তাই অভিমান করে জহির মিয়া (৩৫) নামে এক যুবক গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করেছেন। বুধবার সকালে ব্রাহ্মণবাড়িয়ার আখাউড়া উপজেলার মোগড়া ইউনিয়নের সীমান্তবর্তী বাউতলা গ্রাম থেকে তার মৃতদেহ উদ্ধার করে পুলিশ।

নিহত জহির একই গ্রামের মৃত বশরুদ্দিনের ছেলে। তিনি দুই সন্তানের জনক ছিলেন।

আখাউড়া থানার ওসি (তদন্ত) মোশারফ হোসেন তরফদার এ তথ্য নিশ্চিত করেন।

নিহতের পরিবার ও পুলিশ জানায়, দালালের মাধ্যমে জহির তার স্ত্রীকে কিছু দিন আগে সৌদি আরব পাঠান। সেখানে যাওয়ার পর থেকেই তিনি স্ত্রীর সঙ্গে কোনো যোগাযোগ করতে পারছিলেন না। এতে জহির মানসিকভাবে ভেঙে পড়েন।

নিহতের বড় ভাই জসিমউদ্দিন জানান, জহির তার স্ত্রীকে সৌদিতে পাঠানোর পর অনেক চেষ্টা করেও যোগাযোগ করতে পারছিলেন না। স্ত্রীর সঙ্গে যোগাযোগ ও কথা বলতে না পারার বেদনায় সে মানসিকভাবে অসুস্থ হয়ে পড়েন।

তিনি বলেন, সৌদি আরব থেকে ফিরে আসা গ্রামের অনেক লোককে তার স্ত্রীর মালিকের মোবাইল নাম্বার দেওয়া হয়। ফোনে আরবিতে কথা বলে তার স্ত্রীকে চাওয়া হতো। কিন্তু তার স্ত্রীর কোনো খোঁজ পেত না জহির।

জসিমের ধারণা, হয়তো এ জন্যই স্ত্রীর ওপর অভিমান ও কষ্ট সহ্য করতে না পেরে জহির গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করে থাকতে পারে।

ওসি (তদন্ত) মোশারফ হোসেন তরফদার বলেন, জহিরের মরদেহ ময়নাতদন্তের জন্য ব্রাহ্মণবাড়িয়া সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে।


© All rights reserved © 2017 AjKaal24.Com
Design & Developed BY ThemesBazar.Com